Friday , June 14 2024
Breaking News
Home / Entertainment / এটাও স্মরণীয় হয়ে থাকবে, কেন না মার সঙ্গে অনেক দিন পর দেখা : জন্মদিনে মৌসুমী

এটাও স্মরণীয় হয়ে থাকবে, কেন না মার সঙ্গে অনেক দিন পর দেখা : জন্মদিনে মৌসুমী

বাংলা সিনেমার নব্বইয়ের দশের বেশ সাড়া জাগানো একজন অভিনেত্রী আরিফা পারভিন জামান মৌসুমী। সালমান শাহের বিপরীতে ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমে বড় পর্দায় পা রেখেই ভক্তদের মন জয় করে নিয়েছেন তিনি। আর এই ধারাবাহিকতা ধরে রেখে একনাগারে একাধিক ব্যবসায় সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন এই অভিনেত্রী।

এদিকে আজ ৩ নভেম্বর মৌসুমীর জন্মদিন। এবারের জন্মদিন তিনি মা ও ছোট বোনের সঙ্গে কাটাবেন।

এর‍্যাপারে মৌসুমী মুঠোফোনে বলেন, ‘জন্মদিন এলে মানুষের ভালোবাসার প্রকাশ বেশি করে ঘটে। মানুষ আমাকে কতটা ভালোবাসে তা বুঝতে পারি। মানুষের ভালোবাসা নিয়েই একটি জীবন পাড়ি দিতে চাই।’

তিনি আরও বলেন, ‘জন্মদিনে দেশকে মিস করছি। সানীকে মিস করছি। পুত্র ও পুত্রবধূকে মিস করছি। ওরা দেশে আছে। মেয়েকে নিয়ে আমি আমিরেকায়।’

‘জন্মদিনের কেক কাটা হবে মাকে নিয়ে, এটাও স্মরণীয় হয়ে থাকবে। কেন না, মার সঙ্গে অনেক দিন পর দেখা। কোভিডের কারণে চাইলেও দেখা করতে আসতে পারিনি। মাকে পেয়ে সত্যি আপ্লুত’, যোগ করেন মৌসুমী।

অভিনয় জীবনে ৩ বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন মৌসুমী। জাতীয় পুরস্কার পাওয়া ৩টি সিনেমা হচ্ছে- ‘মেঘলা আকাশ’, ‘তারকাটা’ ও ‘দেবদাস’। এ ছাড়া, ৬ বার পেয়েছেন বাচসাস পুরস্কার। পাশাপাশি আরও অনেক পুরস্কার তিনি পেয়েছেন।

মৌসুমী বলেন, ‘অনেক পুরস্কার আমার অভিনয় ক্যারিয়ারে যুক্ত হয়েছে। তবে, মানুষের ভালোবাসা বড় পুরস্কার।’

ইউনিসেফের শুভেচ্ছা দূত হয়েছিলেন তিনি। এ বিষয়ে বলেন, ‘আমার বাবার অসহায় মানুষের জন্য কাজ করার ইচ্ছে ছিল। সেই চাওয়া থেকেই আমিও কাজ করি। ইউনিফের শুভেচ্ছা দূত হওয়াটা আমার জন্য সম্মানের ছিল।’

সম্প্রতি শেষ হয়েছে তার ৩টি চলচ্চিত্রের শুটিং। একটির নাম ‘ভাঙন’। পরিচালনা করছেন মীর্জা সাখাওয়াত হোসেন। আরেকটি সিনেমার নাম ‘সোনার চর’। পরিচালনা করছেন জাহিদ হোসেন। অন্য চলচ্চিত্রটির নাম ‘দেশান্তর’। এটি পরিচালনা করছেন আশুতোষ সুজন। তিনিটি সিনেমাই সরকারি অনুদানে নির্মিত হচ্ছে।

দেশে ফিরেই সিনেমা তিনটির ডাবিং শুরু করবেন মৌসুমী। এ বিষয়ে বলেন, ‘শুটিং শেষ হলেও ডাবিং শেষ করিনি। ফেরার পরই শুরু করব।’

মেয়েকে নিয়ে কিছুদিন আগে তিনি ছুটি কাটাতে আমেরিকায় গেছেন। দুই সপ্তাহ সানফ্রান্সিসকোতে কাটানোর পর এখন আছেন আটলান্টায় ছোট বোন চলচ্চিত্র নায়িকা ইরিনের বাসায়। ইরিন অনেকদিন হলো স্থায়ী হয়েছেন আমেরিকায়। মৌসুমীর মা সেখানে থাকেন।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) একমাত্র কন্যা ফাইজাকে সঙ্গে নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের উদ্দেশ্যে দেশ ত্যাগ করেন চিত্রনায়িকা মৌসুমী। এ সময়ে তাদের যাওয়ার ইচ্ছা থাকলেও ভিসা জটিলতার কারনে যুক্তরাষ্ট্রে যেতে পারেননি ওমর সানী। ফলে কিছুদিন স্ত্রী-কন্যার থেকে দূরে থাকতে হচ্ছে তাকে।

About

Check Also

হঠাৎ না ফেরার দেশে জনপ্রিয় অভিনেতা, শোবিজ অঙ্গনে শোকের ছায়া

না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের অভিনেতা পার্থসারথি দেব। শুক্রবার (২২ মার্চ) কলকাতার বাঙ্গুর হাসপাতালে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *