Sunday , April 21 2024
Breaking News
Home / Entertainment / ছেলে শুদ্ধকে পরীক্ষার হলে পৌঁছে দিতে গিয়ে অন্য এক পরিস্থিতির মুখোমুখি চঞ্চল
?????? ???????? ??? ????? ???? ???? ?? ?????????? ???????? ????? ??????

ছেলে শুদ্ধকে পরীক্ষার হলে পৌঁছে দিতে গিয়ে অন্য এক পরিস্থিতির মুখোমুখি চঞ্চল

বাংলা ছোট পর্দার তুমুল জনপ্রিয় একজন অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী। যিনি ছোট পর্দার পাশাপাশি বড় পর্দায় অভিনয়ে করেও ভক্তদের মাঝে বেশ সাড়া পেয়েছেন। তবে অভিনয়ের পাশাপাশি মাঝে মধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় সরব হতে দেখা যায় তাকে। যেখানে ভক্তদের সাথে নানা বিষয় শেয়ার করে থাকেন তিনি। আর সেই সুবাদে আজও নিজের ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিলেন গুণী এই অভিনেতা।

জানা যায়, রোববার (৩১ অক্টোবর) ছেলেকে স্কুলে পৌঁছে দেয়ার জন্য গাড়ি নিয়ে বের হন চঞ্চল চৌধুরী। তিনি নিজেই ড্রাইভ করছিলেন। কিন্তু রাস্তায় ছিলো প্রচন্ড জ্যাম। সে সময়ের তোলা একটি ছবি ফেসবুকে পোস্ট করেছেন তিনি। সেই পোস্টে কিছু বার্তা দিয়েছেন এই অভিনেতা।

চঞ্চল চৌধুরীর লেখাটি হুবহু তুলে ধরা হলো-

‘আমরা মানতে মানতে সব কিছুতেই অভ্যস্ত হয়ে যাই। যাকে বলে পরিস্থিতির সাথে খাপ খাইয়ে নেয়া। হাজার বলাতেও যখন কোন কাজ হয়না, তখন চুপ হয়ে যাওয়াটাও আমাদের অভ্যাসেরই একটা অংশ হয়ে গেছে।

গতকাল থেকে শুদ্ধ’র বার্ষিক পরীক্ষা শুরু হয়েছে। ট্রাফিক জ্যাম এখন ঢাকা শহরের এক এবং অবিচ্ছেদ্য অংশ। ঢাকা থাকবেন অথচ জ্যামের সাথে প্রেম হবে না, তা তো হয় না। জ্যাম হচ্ছে পুরনো প্রেমিকার মত। আপনি চাইলেও সে আপনাকে ছাড়বে না ( আমার বিষয়টা যদিও ভিন্ন )।

যাই হোক, গতকাল বাসা থেকে শুদ্ধ’র স্কুলে আসতে আধা ঘন্টা সময় লেগেছিল। আজ লাগলো পুরো দুই ঘন্টা। আজ শুদ্ধ’র বাংলা পরীক্ষা। গত ৫০ বছর ধরে বাংলা পরীক্ষায় আমরা বাঙালী জাতি খুব বেশী ভালো রেজাল্ট করতে পারিনি। আসুন, আমরা বাংলায় ভালো করি, বাংলাদেশকে ভালোবাসি।’

গতকালও (৩০ অক্টোবর) ছেলে শুদ্ধকে স্কুলে পৌঁছে দিয়েছিলেন চঞ্চল চৌধুরী। ছেলের একটি ছবি পোস্ট করে তিনি লিখেছেন- ‘আজ আমাদের বার্ষিক পরীক্ষা শুরু। জ্যাম থেকে মুক্ত থাকার জন্য বেশ আগেই বাসা থেকে বের হয়েছিলাম। ফলাফল মন্দ নয়, দুই ঘন্টা আগেই আমরা স্কুলে পৌঁছে গেছি। এখনও গাড়িতে বসে শেষ পর্যায়ের প্রস্তুতি নিচ্ছি। পরীক্ষাটা শুদ্ধ’র একার না,আমাদেরও। ছোট বেলার কথা মনে পড়ছে। আমরা পরীক্ষার আগে ভোরবেলা উঠে পড়তাম। ভোরের পড়া নাকি মনে থাকে।’

ছোটবেলার স্মৃতিচারণ করে এই অভিনেতা আরও লিখেছেন, ‘মা ডেকে জাগিয়ে দিয়ে,পাশে বসে থাকতেন। ঘুমে ঝুলে পড়তাম। মা আবার জাগাতেন। পরীক্ষা গুলো আসলেই শুধু সন্তানদের হয় না, বিশেষ করে মায়েদেরই হয়। মায়েরা জাগলেই সন্তান জাগে।’

প্রসঙ্গত, ‘আরণ্যক’ নাট্যদলের সাথে যুক্ত হয়ে অভিনয় কর্মজীবন শুরু করেন চঞ্চল চৌধুরী। এরপর বেশকিছু জনপ্রিয় নাটকে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে ভক্তদের নজরে আসেন তিনি। তবে এর পাশাপাশি একজন সঙ্গীতশিল্পী হিসেবেও বেশ খ্যাতি রয়েছে গুণী এই তারকার।

About

Check Also

হঠাৎ না ফেরার দেশে জনপ্রিয় অভিনেতা, শোবিজ অঙ্গনে শোকের ছায়া

না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের অভিনেতা পার্থসারথি দেব। শুক্রবার (২২ মার্চ) কলকাতার বাঙ্গুর হাসপাতালে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *