Saturday , July 13 2024
Breaking News
Home / Countrywide / সাংসদকে রাতের ভোটের এমপি বললেন আ.লীগ সমর্থিত ইউপি চেয়ারম্যান

সাংসদকে রাতের ভোটের এমপি বললেন আ.লীগ সমর্থিত ইউপি চেয়ারম্যান

ময়মনসিংহ-৯ নান্দাইল আসন থেকে নির্বাচিত এমপি আনোয়ারুল আবেদীন খান তুহিন এমপির সমালোচনা করে ‘রাতের ভোটের এমপি’ হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেন এমদাদুল হক ভূঁইয়া যিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক ও চন্ডিপাশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে রয়েছেন। গত পরশু অর্থাৎ মঙ্গলবার দুপুরের পর তিনি তার নিজ এলাকায় অনুষ্ঠিত এক কর্মী সভায় এমন ধরনের মন্তব্য করেন। এতে ঐ এলাকায় ব্যপক তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

গত মঙ্গলবার অর্থাৎ ২৩ নভেম্বর চন্ডিপাশা ইউনিয়নাধীন বাঁশহাটি নামক এলাকায় স্থানীয় আওয়ামী লীগের তৃণমূল পর্যায়ের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন সাবেক এমপি মেজর জেনারেল (অব.) আব্দুস সালাম। এসময় উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক চৌধুরী স্বপন, সিরাজুল ইসলাম ভূঁইয়াসহ আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এক পর্যায়ে চণ্ডীপাশা ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান এমদাদুল হক তাঁর বক্তব্যে বলেন, ‘বর্তমান এমপি আনোয়ারুল আবেদিন খান তুহিন দুইবারের এমপি হলেও আপনারা কখনো ভোট দিতে পারেননি। ২০১৪ সালে বিনা ভোটে অটোপাস আর ২০১৮ সালে রাতের ভোটে এমপি হয়েছেন। এ অবস্থায় ২০২৩ সালে তিনি… খাবেন।’

তাঁর এই বক্তব্য এরই মধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফে’সবুকে ভাই’রাল হয়েছে।

এ বিষয়ে হাসান মাহমুদ জুয়েল যিনি নান্দাইল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে রয়েছেন তিনি বলেন, “কেউ নৌকা প্রতীক নিয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর, ক্ষমতাসীন দলের একজন সাংসদকে নিয়ে এই ধরনের বিরুপ মন্তব্য করার মাধ্যমে পুরো দলকে প্রশ্নবি’দ্ধ করে। চেয়ারম্যান এমদাদুল হক ভূঁইয়ার বিরুদ্ধে দলীয়ভাবে ব্যবস্থা নেওয়া দরকার।

সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আবেদীন খান তুহিন এ প্রেক্ষিতে বলেন, আমি প্রায় আড়াই লক্ষ ভোট পাওয়ার মাধ্যমে নির্বাচিত হয়েছি। জনগণ আমাকে স্বতঃস্ফূর্তভাবেই ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছে।’

About

Check Also

কোটা আন্দোলনকারীদের ‘বাংলা ব্লকেড’ ভাঙতে এবার মাঠে নামার প্রস্তুতি নিচ্ছে পুলিশ

‘বৈষম্য বিরোধী ছাত্র আন্দোলন’ নামে শিক্ষার্থীদের চলমান কোটা সংস্কার আন্দোলনে রাজধানীবাসীকে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *