Friday , July 12 2024
Breaking News
Home / Entertainment / এফডিসিতে এসে ডিপজলের হুঙ্কার, জানা গেল কারন

এফডিসিতে এসে ডিপজলের হুঙ্কার, জানা গেল কারন

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির( Bangladesh Film Artists Association ) নির্বাচনকে কেন্দ্র করে জায়েদ ও নিপুনের( Nipuner ) মধ্যে চলমান সংঘা”ত আলোচনার শীর্ষ স্থান দখল করে বসে আছে। সম্প্রতি জায়েদ খানের সাধারন সম্পাদক পদের প্রার্থীতা বাতিল অবৈধ নয়, এ বিষয়ে চলমান আপিলের শুনানীর ভিত্তিত্বে আদালতের রায়ে জায়েদের( Zayed ) পক্ষে। অপর দিকে আবারো চেয়ার হারিয়ে আদালতের রায় সুষ্ঠ হয়নি বলে গনমাধ্যেম কর্মীর কাছে মন্তব্য করেন নিপুন আক্তার। তবে বিষটি পর্যাপ্ত এবং আদালতের বর্তমান রায়কে সাধুবাদ জানিয়ে এফডিসিতে( FDC ) চলমান সকল সমালোচনার কাদা ছুড়াছুড়ি বন্ধ করে সবাইকে স্বাভাবিক হওয়ার আহ্ববান জানিয়েছেন জনপ্রিয় চলচ্চিত্র অভিনেতা একই সাথে প্রযোজক ও পরিচালক ডিপজল।

প্রচুর কাদা ছোড়াছুড়ি হয়েছে। আমি আর কাদা ফেলতে চাই না। নির্বাচন নিয়ে যে সমস্যাগুলো দেখা দিয়েছে তার সঙ্গে আমাদের শিল্পীদের মান ও সম্মানের উপর বিরুপ প্রভাব ফেলছে। এখন আদালতের রায় মানতে হবে। একে অপরকে সহযোগিতা করতে হবে। শিল্পীদের মধ্যে বিভক্তি থাকা ভালো নয়। এটা এখনই শেষ করতে হবে। এ নিয়ে আর কোনো কথা বলা উচিত নয় বলে মন্তব্য করেছেন চলচ্চিত্রের খ্যাতিমান চলচ্চিত্র নির্মাতা মনোয়ার হোসেন( Monwar Hossain ) ডিপজল।

নির্বাচনে জয়ের এক মাস চার দিন পর বৃহস্পতিবার( Thursday ) (৩ মার্চ( March )) এফডিসিতে( FDC ) হাজির হয়ে তিনি বলেন, বাহিরের মানুষ এফডিসিতে( FDC ) আসবে কেন? এফডিসিতে( FDC ) এত অপরিচিত প্রথম দেখলাম। কে এনেছে? কেন? অপরিচিত আনার এত সাহস কার? অপরিচিতদের নিয়ে আসলেই সব কিছু? এত সহজ নয়। এই সময়ে চলচ্চিত্রে ১৮টি প্রতিষ্ঠান বলে কিছু নেই, উল্লেখ করে ডিপজল বলেন, ‘জায়েদকে কেন সরাতে চান? তার সমস্যা কি? এখানেই শেষ। আমাদের মাতৃ সংগঠন প্রযোজক সমিতি। দীর্ঘদিন ধরে ওই সমিতি বন্ধ রয়েছে। রয়েছে পরিচালক সমিতি। ওই সমিতির সভাপতি হাত তুলে জয়ী হন। তাকে লাল কার্ড দেখানো হয়েছে। যে সমিতির সভাপতি হাত তুলে বিজয় ঘোষণা করেছেন তাকে আগেই অযোগ্য ঘোষণা করা উচিত ছিল। সে অন্যায় করেছে।

সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খানের( Zayed Khan ) সঙ্গে শিল্পী সমিতির অফিসে থাকা এই অভিনেতা আরও বলেন, ‘তিনি (সোহানুর রহমান সোহান( Sohanur Rahman Sohan )) সংবিধান সম্পর্কে কিছুই জানেন না বা বোঝেন না। হয়তো সে এমন কিছু বলেছে। কেন সে এমন বলবে? ছবিতে অনেকেই আছেন তিনি কিছুই নন। এর চেয়ে অনেক মাথা আছে এই নোংরামি বন্ধ করা উচিত। যারা নোংরামি করছে তাদের আমরা ধরব। কেন তারা এই নোংরামি করেছে তার জবাব দিতে হবে। ‘কারো নাম না করে ইঙ্গিত দিলেন, ‘সিনেমা হল মালিক আছেন, তিনি বড় নেতা।

তিনি যত বড় নেতাই হোন না কেন, তিনি শূন্য। সবাই সতর্ক থাকুন যেন আর এ নিয়ে কথা না হয়। খারাপ কাজ পরিহার করে ভালো কাজে লিপ্ত হও। এই দেশে এখনও আইন আছে। যারা এখনো অন্যায় থেকে সরে আসেনি তারা সরে যাক। সবার প্রতি আবেদন জানিয়ে ডিপজল বলেন, ‘চলচ্চিত্র শিল্প ডুবে যাচ্ছে। সবাই ভাবছেন কিভাবে এই অবস্থা থেকে উত্তরণ করা যায়। আসুন সকল নোংরামি দূর করে চলচ্চিত্রের উন্নয়নে কাজ করি। আমি আর নোংরা চাই না। একসঙ্গে কাজ করে আমাদের চলচ্চিত্র শিল্পকে এগিয়ে নিয়ে যাব।

উল্লেখ্য, শিল্পী সমিতির নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আদালতে চলমান মামলার শুনানির পর থেকে এফডিসির ভিতরে চলমান উত্তে’জনাকে সীমহীন নোংরামি বলে উদ্বেগ প্রকাশ করলেন মনোয়ার হোসেন ডিপজল। চলমান এই নোংরামি বর্তমান শিল্পী সমিতির উপর এবং শিল্পীদের মানসম্মানের উপর ব্যাপকভাবে খারাপ প্রভাব ফেলছে। তাই নিজেদের সন্মানের কথা বিবেচনা করে এখনই সবাইকে এই নোংরামি থেকে বেরিয়ে আসার আহ্ববান জানান তিনি

About bisso Jit

Check Also

সামালোচনার মুখে পড়ে অবশেষে বিসিএস পরীক্ষা নিয়ে মুখ খুললেন তাহসান

বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশনের (পিএসসি) প্রশ্নপত্র ফাঁস কেলেঙ্কারি নিয়ে দেশজুড়ে সমালোচনা হচ্ছে। হঠাৎ করেই দুর্নীতিবাজদের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *