Sunday , July 21 2024
Breaking News
Home / Countrywide / একই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদের প্রার্থী স্বামী-স্ত্রী

একই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদের প্রার্থী স্বামী-স্ত্রী

আসছে ১১ নভেম্বর মানিকগঞ্জ জেলার সিংগাইর উপজেলায় দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচনে থাকছে ১১টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন এবং এই নির্বাচনকে ঘিরে ঐ এলাকায় অনেকটা উৎসবমূখর পরিবেশ বিরাজ করছে। তবে সেখানকার একটি ইউনিয়নের নির্বাচনের দুই প্রার্থী নিয়ে চা’ঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

সিঙ্গাইর উপজেলার চারিগ্রাম ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে চেয়ারম্যান হিসেবে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে রিপন হোসেন নামক এক ব্যক্তিকে। তিনিসহ ঐ ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান শেখ মো. সাজেদুল আলম স্বাধীন এবং তার স্ত্রী লিলি আক্তার স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে চেয়ারম্যান পদে ল’/ড়ছেন। এ ঘটনার পর ঐ এলাকায় চা’ঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

তবে তিনি জানান, তার স্ত্রী লিলি আক্তার প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে চাননি, বরং নির্বাচনী কৌশল হিসেবে স্বামী স্বাধীনকে সমর্থন দিতে চান।

উপজেলা রিটার্নিং অফিসার মাহবুব রোমান চৌধুরী বলেন, উপজেলার ১১টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যন পদে ৪৬ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। গতকাল মঙ্গলবার (২৬ অক্টোবর) শেষ দিনে পাঁচটি ইউনিয়নের ৯ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী তাঁদের মনোনয়নপত্র প্র’ত্যাহার করেন।

এরমধ্যে চারিগ্রাম ইউনিয়নে চারজনের মধ্যে একজন মনোনয়নপত্র প্র’ত্যাহার করলেও ভোটের মাঠে থেকে যান আওয়ামী লীগ প্রার্থী রিপন হোসেনসহ বর্তমান চেয়ারম্যান শেখ সাজেদুল আলম স্বাধীন ও তাঁর স্ত্রী লিলি আক্তার। স্বামী-স্ত্রী দুজনই স্বতন্ত্র প্রার্থী।

শেখ মো. সাজেদুল আলম স্বাধীন পরপর দুইবার বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। এবার তাঁর প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী রিপন হোসেন। স্বাধীনের স্ত্রী লিলি আক্তার বলেন, ‘স্বামীকে সহযোগিতা করার জন্যই আমি চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছি।’ আর স্বাধীন বলেন, ‘আমার স্ত্রী লিলি আক্তারকে ব্যাকআপ হিসেবে প্রার্থী করিয়েছি। এটি আমার নির্বাচনী কৌশল। নির্বাচন সুষ্ঠু হলে এবারও বিপুল ভোটে বিজয়ী হব ইনশাআল্লাহ।’

নির্বাচনে কোনো কৌশল নেওয়া হয়েছে কিনা সেখানকার কয়েকজন ব্যক্তিকে প্রশ্ন করা হলে তারা জানান, আমাদের এলাকায় নির্বাচনে কোনো কৌশল আছে কিনা সেটা তারাই ভালো বলতে পারবেন। কিন্তু আমরা আশা করছি নির্বাচন বেশ আমেজ নিয়েই হবে। এক পদে স্বামী স্ত্রী দাঁড়িয়েছেন সেটাই আমাদের এলাকার নির্বাচনকে একটি ভিন্ন মাত্রা এনে দিয়েছে। তবে নির্বাচনে কোনো কৌশল থাকলেও সেটা নিয়ে আমাদের মন্তব্য করা ঠিক হবে না। দেখা যাক, ভোটের ফলাফল কী আসে।

About

Check Also

ধোঁয়া আর বারুদের গন্ধে উত্তপ্ত জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জ্যাব) কোটা সংস্কার আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের ছত্রভঙ্গ করতে টিয়ারশেল-সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ করেছে পুলিশ। শিক্ষার্থীরাও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *