Sunday , June 23 2024
Breaking News
Home / Countrywide / বিসিএস দিতে ঢাকায় এসে আর বাড়ি ফেরা হলো না জিহাদের

বিসিএস দিতে ঢাকায় এসে আর বাড়ি ফেরা হলো না জিহাদের

বিসিএস ক্যাডার হওয়ার স্বপ্ন নিয়ে ঢাকায় পরীক্ষা দিতে এসে আর বাড়ি ফেরা হলো চবির ফলিত রসায়ন বিভাগের মেধাবী শিক্ষার্থী তৌহিদুল ইসলাম জিহাদের। আজ মঙ্গলবার (২ নভেম্বর) সকালে মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফেরার পথে কাভার্ড ভ্যানের চাপায় ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান দুই ভাই। এদিকে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, তাদের বাবার নাম আজিজুল হক। তারা জামালপুর সদরের নান্দিনা খড়খড়িয়া গ্রামের বাসিন্দা।

কাভার্ড ভ্যানের চাপায় ঘটনাস্থলেই মোটরসাইকেল আরোহী দুই সহোদর নিহত হয়েছেন। ঘটনাটি ঘটেছে আজ মঙ্গলবার সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার বৈলর ইউনিয়নের কাজির শিমলা নামক স্থানে।

থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার বৈলর ইউনিয়নে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের কাজীর শিমলা নামক স্থানে দুই মোটরসাইকেল আরোহীকে বাংলাদেশ পার্সেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিসের কাভার্ড ভ্যান (ঢাকা মেট্রো-ম ৫৪-২৩০৬) পেছন দিক থেকে ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই মোটরসাইকেল আরোহী ফিরোজ মোর্শেদ (৩৫) ও তৌহিদুল ইসলাম জিহাদ (২৪) নামের দুই ভাইয়ের মৃত্যু হয়।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, নিহত ফিরোজ মোর্শেদ গাজীপুরে ডিবিএল সিরামিকসে চাকরি করতেন। তার ছোট ভাই জিহাদ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ফলিত রসায়ন বিভাগের মেধাবী শিক্ষার্থী। বিসিএস পরীক্ষা দিতে ঢাকায় এসেছিলেন তিনি। আজ ভোরে মোটরসাইকেলযোগে তারা গাজীপুর জেলার নয়নপুর থেকে নিজ গ্রামের বাড়ি জামালপুর সদরের নান্দিনা খড়খড়িয়ায় উদ্দেশে রওনা দেন। ত্রিশালের কাজীরশিমলা অতিক্রম করার সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এদিকে এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ত্রিশাল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাইন উদ্দিন গণমাধ্যমকে জানান, এ ঘটনা ঘাতক ঐ ভ্যানচালককে আটক করা হয়েছে। একই সাথে মৃতদেহ উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

এদিকে তাদের মৃত্যুতে রীতিমতো শোকের ছায়া নেমে এসেছে পরিবার-স্বজনদের মাঝে। অকালেই দুই ছেলকে হারিয়ে মানসিকভাবে ভেঙ্গে পড়েছেন ফিরোজ-জিহাদের বাবা-মা।

About

Check Also

অবন্তিকার পর এবার একই পথে হাঁটল মীম

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আ/ত্মহত্যা করেছে। শিক্ষার্থীর নাম শারভীন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *