Sunday , May 26 2024
Breaking News
Home / Countrywide / এবার পুলিশের টেনশন ‘বরিশাল বিবিকিউ’

এবার পুলিশের টেনশন ‘বরিশাল বিবিকিউ’

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন সময় নানা বিষয় নেটিজনেদের কাছে বেশ বিরক্তির কারন হয়ে দাড়িয়েছে এবং দেখা যাচ্ছে কিছু কিছু ক্ষেত্রে এগুলো নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে। বরিশালে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকের একটি পেজ নিয়ে বেশ আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছে। ওই পেজ থেকে স্কুল-কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের নানা ধরনের ছবি পোস্ট করে জিম্মি করে অর্থ নেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

প্রথমে ‘বরিশাল বিবিকিউ’, এরপর ‘বিবিকিউ টিভি’ নামে ফেসবুক পেজ খুলে একটি চক্র বরিশালের বিভিন্ন বিনোদনকেন্দ্রে ঘুরতে যাওয়া তরুণ-তরুণীদের ছবি তুলে পোস্ট দিয়ে জিম্মি করছে। বরিশাল পুলিশের মাথাব্যথা হয়ে দাঁড়িয়েছে এই দুটি পেজ। কারণ অ্যাডমিন কারা, তা শনাক্ত করা যাচ্ছে না

থানায় ওই ফেসবুক পেজ ও সেটির অ্যাডমিনের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ থাকলেও পুলিশ পাচ্ছে না কূলকিনারা। বরিশালের পুরো পুলিশ বিভাগের মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে এই ফেসবুক পেজ। পুলিশ মনে করে, শিগগিরই পুলিশের জালে ধরা পড়বে এই চক্র। তবে আইটি বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ডার্ক ওয়েব থেকে ফেসবুক পেজ পরিচালিত হওয়ায় ব্যবহারকারী বা অ্যাডমিনের লোকেশন চিহ্নিত করতে পারছে না পুলিশ।

পুলিশ জানায়, ‘বরিশাল বিবিকিউ’ নামে প্রথমে ফেসবুক পেজ খোলে একটি চক্র। সেই পেজ থেকে বরিশালের বিভিন্ন বিনোদনকেন্দ্রে ঘুরতে যাওয়া তরুণ-তরুণীদের ছবি তুলে তাতে নানা ধরনের অশ্লীল মন্তব্য জুড়ে দিয়ে পোস্ট করা হতো। একপর্যায়ে তরুণ-তরুণীদের জিম্মি করা হতো। নির্দিষ্ট অঙ্কের অর্থের বিনিময়ে মুছে দেয়া হতো নির্ধারিত পোস্ট।

এই ফেসবুক পেজের বিরুদ্ধে বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানায়ই অভিযোগ আছে পাঁচটি। এর মধ্যে দুটিতে জিম্মি করে অর্থ আদায়ের বিষয় উল্লেখ আছে। তবে ‘বরিশাল বিবিকিউ’ নামে যে ফেসবুক পেজটি রয়েছে, সেটি গত মাসেই ফেসবুক থেকে উধাও হয়ে যায়। পরে ‘বিবিকিউ টিভি’ নামে ফেসবুক পেজ খোলে একই চক্র। সেই পেজেও করা হচ্ছে একের পর এক পোস্ট। উঠতি বয়সীদের ছবি দিয়ে অশ্লীল মন্তব্য জড়িয়ে পোস্ট করা হচ্ছে ফেসবুকে। এই চক্রটি সম্প্রতি ‘বরিশাল বিবিকিউ- কাপলস দেখলেই ধরায়া দিব’ নামে আরও একটি ফেসবুক পেজ খোলে।

এ নিয়ে বিব্রত পুরো বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ। এ চক্রটির কোনো কূলকিনারা এখন পর্যন্ত করতে পারেনি পুলিশ।

বরিশাল সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির এক ছাত্রী বলে, ‘আমার ভাইকে নিয়ে বিকেলে ঘুরতে গিয়েছিলাম কীর্তনখোলা নদীর তীরে ত্রিশ গোডাউন এলাকায়। সেখানে আমরা ঘোরাঘুরি করেছি। আমার ও আমার ভাইয়ের ছবি তুলে নানা অশ্লীল বাক্য লিখে তা ‘বরিশাল বিবিকিউ’ নামের ফেসবুক পেজে পোস্ট করা হয়েছে।

‘বিষয়টি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে বাধ্য হয়ে গ্রুপটিতে মেসেজ দিই। দুই দিন পর রিপ্লাই দেওয়া হয়। আমি তাদের ছবিটি সরিয়ে ফেলতে অনুরোধ করি। কিন্তু তারা নানা টালবাহানা শুরু করে। একসময় অ্যাডমিন আমার কাছে ৩০ হাজার টাকা দাবি করে। পরে বাধ্য হয়ে ওই টাকা দিয়ে ছবি ডিলিট করানো হয়। অ্যাডমিন একটি বিকাশ নম্বর দিয়েছিল, সেই নম্বরেই টাকাটা পাঠানো হয়। নম্বরটি এজেন্ট নম্বর ছিল।’

দক্ষিণ আলেকান্দা এলাকার বাসিন্দা সাফায়েতুর রহমান বলেন, ‘আমার এলাকার দুইটা ছেলের সঙ্গে এমন ঘটনা ঘটেছে। তারা শুক্রবার ঘুরতে গিয়ে এমন হয়রানির শিকার হয়েছে। তাদের একজনের কাছে ১০ হাজার টাকা এবং অন্যজনের কাছে ২০ হাজার টাকা দাবি করেছিল ফেসবুক পেজের অ্যাডমিন। তবে সেই টাকা তারা দিতে রাজি হয়নি।’

নগরীর কাটপট্টি এলাকার জুনায়েদ বলেন, ‘“বরিশাল বিবিকিউ” ফেসবুক পেজ থেকে আমাদের ছয় বন্ধুর ছবি দিয়ে নানা ধরনের পোস্ট করে। এরপর আমরা এবং আমাদের পরিচিত সবাই মিলে পেজটিতে রিপোর্ট করলে এই পেজটি ফেসবুক থেকে ভ্যানিশ হয়ে যায়। এর পরই ওই চক্রটি তাদের কাজ অব্যাহত রাখতে ‘বিবিকিউ টিভি’ নামে আরেকটি পেজ সৃষ্টি করে।’

আইটি বিশেষজ্ঞ জান্নাতুল ফেরদৌস শাখি বলেন, ‘ফেসবুক পেজটি আমি ভালোভাবে লক্ষ করেছি। এদের তো এত সোর্স থাকতে পারে না। এদের চক্রটি ১০ থেকে ১৫ সদস্যের হতে পারে। আবার এমনও হতে পারে, যাদের ছবি দেওয়া হচ্ছে এই ফেসবুক পেজে, তাদের ঘনিষ্ঠরাই শত্রুতাবশত এই ছবি তুলে ‘বিবিকিউ টিভি’র অ্যাডমিনকে পাঠাচ্ছে। আর সেখান থেকেই ছবিগুলো প্রকাশ করা হচ্ছে।’

এমআর হোস্ট বিডির আইটি বিভাগের প্রধান মাসুদ রানা বলেন, ‘যারা এই পেজগুলো চালাচ্ছে, তারা আইটি সম্পর্কে বেশ অভিজ্ঞ। তারা বিভিন্ন দেশের আইপি অ্যাড্রেস দিয়ে নিজেদের ডিভাইসগুলো চালনা করে। পাশাপাশি এমন কিছু ব্রাউজার আছে, যা ব্যবহার করলে লোকেশন ট্র্যাক করা অসম্ভব। এ সবকিছুই ব্যবহার করছে বরিশালের আলোচিত এই ফেসবুক পেজটির অ্যাডমিন।

‘ডার্ক ওয়েব ব্যবহার করে থাকে এই অ্যাডমিন– আমার ধারণা। ডার্ক ওয়েব মানে যেখানে নিষিদ্ধ ও অপরাধমূলক কাজগুলো খুব সহজে করা যায়। ডার্ক ওয়েব ব্যবহার করাও অপরাধ। হ্যাকাররাও এই ওয়েব ব্যবহার করে থাকে। এই ব্রাউজার বা ওয়েব ব্যবহারকারীদের লোকেশন ট্র্যাক করার কোনো সুযোগ নেই। তা না হলে পুলিশের খাঁচায় বেশ দ্রুতই ধরা পড়ত এরা।’

বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানার পরিদর্শক লোকমান হোসেন বলেন, “‘বরিশাল বিবিকিউ’ নামের একটি ফেসবুক পেজ থেকে তরুণ-তরুণীদের ছবি পোস্ট করে নানা ধরনের অশ্লীল মন্তব্য করার অভিযোগ ওঠে আরও তিন-চার মাস আগে। দুই মাস আগে এক তরুণী থানায় এই পেজের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দেন। সেই অভিযোগে ওই ফেসবুক পেজে ছবি পোস্ট করে অশ্লীল মন্তব্য জুড়ে দেওয়ার কথা বলা হয়, পরে জিম্মি করে ২০ হাজার টাকা নেওয়া হয়।

“কোতোয়ালি থানায় এই ফেসবুক পেজের বিরুদ্ধে পাঁচটি অভিযোগ আছে। তবে যে পেজটির বিরুদ্ধে অভিযোগ ছিল, সেই পেজটি বন্ধ হয়ে গেছে। ওই একই চক্র ভিন্ন নামে আরেকটি পেজ খুলেছে। এখন ‘বিবিকিউ টিভি’ নামের নতুন পেজ থেকে তারা আবার বিনোদন কেন্দ্রে ঘুরতে যাওয়া তরুণ-তরুণীদের ছবি তুলে পোস্ট করে অশ্লীল মন্তব্য জুড়ে দিচ্ছে।”

‘এই পেজের সঙ্গে যারা জড়িত রয়েছে, তাদের ধরতে আমরা বেশ কঠোরভাবেই কাজ করছি। কোন এলাকা থেকে এই ফেসবুক পেজ কন্ট্রোল করা হয়, সেটা আমরা পেয়েছি। মূলত আমরা এই ফেসবুক পেজ নিয়ে বিরক্তির মধ্যে আছি।’

বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপপুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ) ফজলুর করিম বলেন, “এই ‘বিবিকিউ টিভি’ বা ‘বরিশাল বিবিকিউ’ পেজের নামে আমাদের কাছে অনেক অভিযোগ এসেছে। আমরা এটা নিয়ে কাজ করছি। এই ফেসবুক পেজ কারা চালায়, কীভাবে কী করে, সেটা নিয়ে অনেক দূর আমরা এগিয়েছি। আশা করি শিগগিরই ভালো কোনো খবর দিতে পারব এই ফেসবুক পেজের বিষয়ে।”

উল্লেখ্য, বর্তমানে দেখা যাচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে নানা ধরনের অপরাধমুলক কর্মকান্ড ঘটে চলেছে বিশেষ করে কিছু সংখ্যক পেজ আছে সেখানে নানা অপপ্রচার এবং গুজব ছড়িয়ে মানুষকে বিভ্রান্ত করা হচ্ছে। বর্তমানে এই ধরনের অপরাধ দমনে কাজ করে চলেছে পুলিশ

About Rasel Khalifa

Check Also

অবন্তিকার পর এবার একই পথে হাঁটল মীম

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আ/ত্মহত্যা করেছে। শিক্ষার্থীর নাম শারভীন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *