Sunday , May 26 2024
Breaking News
Home / Countrywide / রাত ১০টার মধ্যে ঘুমানোর নির্দেশনা দিয়ে চিঠি, স্যোশাল মিডিয়ায় নিন্দার ঝড়

রাত ১০টার মধ্যে ঘুমানোর নির্দেশনা দিয়ে চিঠি, স্যোশাল মিডিয়ায় নিন্দার ঝড়

সরকারী নির্দেশনা অনুযায়ী নতুন সময়ে অফিস করছে সরকারী কর্মচারীরা। সম্প্রতি সরকার জ্বালানী সাশ্রয়ের জন্য এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তবে এরই মধ্যে দেখা যাচ্ছে নানা বিতর্কিত কর্মকান্ডের আসছে। গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলার জয়নগর শাখা রূপালী ব্যাংকে সকাল ৯টা থেকে ব্যাংকিং কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পালন করতে রাত ১০টার মধ্যে ঘুমিয়ে যাওয়ার নির্দেশনার চিঠি নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ আগস্ট) ওই শাখার সিনিয়র অফিসার মো. শহিদুল ইসলামকে ব্যাংকের ম্যানেজার এই নির্দেশনার চিঠি দেন। এ বিষয়ে জানতে মো. শহিদুল ইসলামের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও তিনি ফোন ধরেননি।

ওই চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘উপযুক্ত বিষয় এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের স্মারক নম্বর ডিওএস ৩১ অনুসারে মো. শহিদুল ইসলাম, সিনিয়র অফিসারকে এই মর্মে জানানো যাচ্ছে যে, ব্যাংকিং কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পাদনের জন্য আপনাকে সকাল ৯ ঘটিকায় কর্মস্থলে উপস্থিত হওয়ার সুবিধার্থে রাত ১০ ঘটিকার মধ্যে ঘুমিয়ে যাওয়ার নির্দেশনা প্রদান করা হলো।’

এ চিঠির কপি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে তা নিয়ে শুরু হয় তোলপাড়।

এ বিষয়ে ব্যাংকের ম্যানেজার মফিজুর রহমান বলেন, ‘ব্যাংকের অপর এক সিনিয়র অফিসার স্বপন সিকদার ফান করে আমার স্বাক্ষর জাল করে শহিদুল ইসলামকে এই চিঠি পাঠিয়ে দিয়েছেন। আসলে এ ব্যাপারে আমি কিছুই জানতাম না বা এমন চিঠি দেয়ার কোনো কারণও নেই।’

তিনি আরও বলেন, ‘সিনিয়র অফিসার শহিদুল ও স্বপনকে শোকজ করা হয়েছে। আগামী তিন দিনের মধ্যে তাদের এর জবাব দেওয়ার জন্য বলা হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশে জ্বালানী সংকটের এই পরিস্থিতি মোকাবেলায় নানা চেষ্টা করছে সরকার এবং এই কারনে ইতিমধ্যে নানা পদক্ষেপ হাতে নিয়েছে তারা। রাত ৮ টার পর সকল দোকানপাট ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান বন্ধ এবং সরকারী অফিসগুলো সকাল ৮ টা থেকে দুপুর ৩টা পর্যন্ত করা হয়েছে

About Rasel Khalifa

Check Also

অবন্তিকার পর এবার একই পথে হাঁটল মীম

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আ/ত্মহত্যা করেছে। শিক্ষার্থীর নাম শারভীন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *