Tuesday , February 27 2024
Breaking News
Home / National / এই একটা সিদ্ধান্তের কারণে সব ক্ষেত্র বাধাগ্রস্ত হচ্ছে, সবাই এখন ভুক্তভোগী : প্রধানমন্ত্রী

এই একটা সিদ্ধান্তের কারণে সব ক্ষেত্র বাধাগ্রস্ত হচ্ছে, সবাই এখন ভুক্তভোগী : প্রধানমন্ত্রী

গত ২্০১৯ সালের শেষের বিশ্বের প্রায় প্রতিটি দেশেই ছড়িয়ে পড়ে সংক্রমন। আর এরই ধারাবাহিকতায় এ সংক্রমনের থেকে রেহাই পায়নি বাংলাদেশেও। ফলে রীতিমতো নানা সমস্যার সম্মুক্ষিন হতে হচ্ছে সবাইকে। তবে এরপরও এ সক্রমন মোকাবেলা করার চেষ্টা করে যাচ্ছে এ সরকার।

আর এদিকে আজ সংক্রমন কারণে বিশ্বব্যাপী অর্থনৈতিক মন্দার সৃষ্টি হয়েছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন,সক্রমন কারণে বিশ্বব্যাপী অর্থনৈতিক মন্দা। উন্নত দেশগুলো সংগ্রাম করছে। সে অবস্থায় আমরা আমাদের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের গতি অব্যাহত রাখতে পেরেছি।

শনিবার (২৩ জুলাই) সকালে জাতীয় পাবলিক সার্ভিস দিবস উদযাপন ও বঙ্গবন্ধু জনপ্রশাসন পদক ২০২২ অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, আজ সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াই, তার ওপর ইউক্রেন-রাশিয়া যুদ্ধে আরেক ধাক্কা এলো। যুদ্ধের পাশাপাশি আমেরিকা রাশিয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। সবাই এখন ভুক্তভোগী। এই একটি সিদ্ধান্তের কারণে আমাদের সার, খাদ্য, জ্বালানি তেল-সব ক্ষেত্র বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, শুধু আমরাই নয়, সারা বিশ্বই শোচনীয় অবস্থায় পড়েছে। এটাই বাস্তবতা. আমার মনে হয়, কেউ যদি মনে করে যে শুধুমাত্র স্যাংশন দিয়েই একটা দেশকে শিক্ষা দেয়া যায়, কিন্তু সবাই সেই শিক্ষা দিয়েই ভোগ করছে। সবাই সেই শিক্ষার দ্বারা প্রভাবিত হয়। আমাদের দেশে যেমন মূল্যস্ফীতি বেড়েছে, উন্নত দেশে মূল্যস্ফীতি অনেক বেশি বেড়েছে। জ্বালানি তেলের দাম বেড়েছে।

সবাইকে মিতব্যয়ী হওয়ার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, আমরা শুধু বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের কথা বলছি না, উন্নত দেশগুলো নির্দিষ্ট করে দিয়েছে তাদের বিদ্যুৎ সাশ্রয় করতে হবে। উন্নত দেশগুলোর কথাই বেশি বলব, আমরা তো অনেক দূরে রয়ে গেছি। তাদের অবস্থাই এই ধরনের করুণ। দেখানে আমরা কোথায়! এরপরও আমার মনে হয়, কারণ আমাদের প্রশাসনিক কর্মকর্তা বা অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা নিজ নিজ অবস্থানে দায়িত্ব পালন করছেন বলেই আমরা অনেক দেশের চেয়ে ভালো অবস্থানে এগিয়ে যাচ্ছি। তবুও আমাদের ভবিষ্যতের কথা মাথায় রেখে মিতব্যয়ী হতে হবে। আমাদের মিতব্যয়ী হতে হবে। অপ্রয়োজনীয় অপচয় এড়াতে বিশেষ নজর দিতে হবে।

এদিকে বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের লক্ষ্যে ইতিমধ্যে নানা পদক্ষেপ নিয়েছে বর্তমান ক্ষমতাসীন এ সরকার। অফিস-আদালত, দোকানপাট থেকে শুরু করে শপিংমলে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে বন্ধ করে দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে সরকার। আর এরই মধ্যে তা বাস্তবায়ন হতে দেখা যাচ্ছে।

About Rasel Khalifa

Check Also

বাবা সৌদি প্রবাসী, ১৯ বছর বয়সে প্রতারণার হাতেখড়ি তার

নওশীন তাবাসসুম। বয়স 22 বছর। পরিবারটি চট্টগ্রামের কর্ণফুলীর হালিশহরে থাকে। তিনি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত একটি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *