ঢাকা উত্তর সিটি ও ঢাকা দক্ষিন সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন শেষ হয়েছে গত ১লা ফেব্রুয়ারী শনিবার। নির্বাচনের আগে ব্যানার, পোস্টারে মুড়ানো, প্রচার প্রচারনায় জমজমাট ছিল ঢাকার ২ সিটি। ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন শেষ হবার পর পোস্টারগুলো শহরের অলিগলিতে রয়ে গেছে। ভোটের পর এই সব পোস্টারগুলো আর্বজনার চোখে দেখা হয়। এবার ঢাকা দক্ষিণ ও উত্তর সিটির ফেলনা পোস্টারগুলো দিয়ে তৈরি হবে খাতা ,ব্যাগ ইত্যাদি প্র‍য়োজনীয় উপকরণ।

আরো পড়ুন

Error: No articles to display


নির্বাচনী প্রচারে ব্যবহৃত পোস্টার দিয়ে লেখার খাতা তৈরি করছে বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন। এবার তারা আরেকটি অভিনব উদ্যোগ নিয়েছে। নির্বাচনী প্রচারে ব্যবহৃত ব্যানার দিয়ে তৈরি করছে সুবিধাবঞ্চিতদের জন্য স্কুলব্যাগ।

নিজেদের ফেসবুক পেইজে এক পোস্টে বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন জানিয়েছে, এতদিন আকাশ দেখা যেতো না প্রতিশ্রুতির ব্যানারে, সে ব্যানারগুলোই এখন চলে যাচ্ছে আবর্জনার ভাগাড়ে। সুন্দর নগরীর পরিবর্তে বর্ষাতে নগরবাসীকে এই ব্যানারগুলো উপহার দেবে জলাবদ্ধতা, ভেঙে পড়বে ড্রেনেজ সিস্টেম।

আবার এই ঢাকাতেই অনেক পথশিশু আছে যারা থলের অভাবে তাদের কাপড় সংরক্ষণ করতে পারে না। আমাদের এতিমখানার শিশুরা বর্ষায় স্কুলে যেতে পারে না বই ভিজবে বলে।

তাই বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন ব্যানারগুলোকে ব্যাগে রূপান্তর করে স্কুলে পাঠানোর ব্যবস্থা করেছে, সেখান থেকে শুরু হোক সুনাগরিকের শিক্ষা।

বিনামূল্যে এই ব্যাগগুলো বিতরণ করা হবে ছিন্নমূল পথশিশুর মাঝে।
ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র আতিকুল ইসলাম ইতিমধ্যে তার ক্যাম্পেইনের কয়েকশ ব্যানার বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনকে উপহার দিয়েছেন।

বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনের উদ্যোক্তারা বলছেন, এভাবে যদি প্রার্থীরা এগিয়ে আসেন, তবে এক হাজার ব্যাগ উপহার দিতে পারবো।


উল্লেখ্য, ঢাকা দক্ষিণ ও উত্তর সিটির ফেলনা পোস্টারগুলো দিয়ে এতিম শিশুদের লেখার খাতা ও ব্যাগ তৈরি হবে। পোস্টারে ব্যবহৃত প্লাস্টিক কাজে লাগিয়ে তৈরি করা হবে শীতের কাপড় ও প্যাকেট। আর দড়ি ব্যবহার হবে চাল-ডাল প্যাকেজিংয়ের কাজে। এমন মহান উদ্দ্যোগ নিয়েছে বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনের সেচ্ছাসেবীর দল।

News Page Below Ad

আরো পড়ুন

Error: No articles to display